৪৮ হাজার কোটি টাকা ছাড়াল বীমা খাতের বিনিয়োগ

নিজস্ব প্রতিবেদক: ৪৮ হাজার কোটি টাকা ছাড়িয়ে গেছে দেশের লাইফ ও নন-লাইফ বীমা খাতের বিনিয়োগ। গেলো বছর সরকারি বেসরকারি বিভিন্ন খাতে বীমা কোম্পানিগুলোর বিনিয়োগ বেড়েছে ৮ হাজার ৫২ কোটি টাকা বা ২০.০৫ শতাংশ। বীমাখাতের নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইডিআরএ এই তথ্য প্রকাশ করেছে। জাতীয় বীমা দিবস ২০২১’র স্মরণিকায় এ তথ্য তুলে ধরা হয়েছে।

তথ্য অনুসারে, ২০২০ সাল শেষে দেশের বীমা খাতে মোট বিনিয়োগ দাঁড়িয়েছে ৪৮ হাজার ২০৮ কোটি টাকা। এর মধ্যে লাইফ বীমা খাতের বিনিয়োগ ৩৬ হাজার ৫৪ কোটি টাকা। আর নন-লাইফ বীমা খাতের বিনিয়োগ ১২ হাজার ১৫৪ কোটি টাকা। এর আগে ২০১৯ সালে লাইফ ও নন-লাইফ বীমা খাতের মোট বিনিয়োগ ছিল ৪০ হাজার ১৫৬ কোটি টাকা।

এক নজরে বীমা শিল্পের অগ্রগতি শীর্ষক প্রতিবেদন অনুসারে, ২০২০ সালে লাইফ বীমায় বিনিয়োগ বেড়েছে ২ হাজার ২২৩ কোটি টাকা বা ৬.৫৭ শতাংশ। বর্তমানে এ খাতের মোট বিনিয়োগ দাঁড়িয়েছে ৩৬ হাজার ৫৪ কোটি টাকা। যা আগের বছর ২০১৯ সালে ছিল ৩৩ হাজার ৮৩১ কোটি টাকা। সে বছর লাইফ বীমা খাতের প্রবৃদ্ধি ছিল ৮.৯৬ শতাংশ বা ২ হাজার ৭৮১ কোটি টাকা।

অন্যদিকে ২০২০ সালে নন-লাইফ বীমার বিনিয়োগ বেড়ে দাঁড়িয়েছে প্রায় দ্বিগুণ। ২০১৯ সালে যেখানে খাতটির বিনিয়োগ ছিল ৬ হাজার ৩২৫ কোটি টাকা। গেলো বছর তা দাঁড়িয়েছে ১২ হাজার ১৫৪ কোটি টাকা। অর্থাৎ ২০১৯ সালের তুলনায় ২০২০ সালে খাতটির বিনিয়োগ বেড়েছে ৫ হাজার ৮২৯ কোটি টাকা বা ৯২.১৬ শতাংশ। এর আগের বছরে এই প্রবৃদ্ধি ছিল ৫.৬১ শতাংশ।

উল্লেখ্য, প্রবিধানমালা অনুসারে দেশের লাইফ বীমা কোম্পানির সম্পদের অন্যূন ৩০ শতাংশ সরকারি সিকিউরিটিজে বিনিয়োগ করতে হয় এবং নন-লাইফ বীমা কোম্পানির সম্পদের অন্যূন ৭.৫০ শতাংশ সরকারি সিকিউরিটিজে বিনিয়োগ করতে হয়। এ ছাড়াও বাকী সম্পদ প্রবিধানমালায় নির্ধারিত অন্যান্য খাতে বিনিয়োগ করতে পারে বীমা কোম্পানিগুলো।