মঙ্গলবার , ২০ শ্রাবণ, ১৪২৭ , ০৪ আগস্ট, ২০২০

বীমাখাতের উন্নয়নে আইন সংশোধন করছে পাকিস্তান


Published: 2020-07-20 16:02:18 BdST

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক: বিদ্যমান আইনে নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থার দুর্বলতা দূর করে বীমাখাতের উন্নয়নে বীমা অধ্যাদেশ ২০০০ সংশোধন করতে যাচ্ছে পাকিস্তান। দেশটির বীমাখাতের নিয়ন্ত্রক সংস্থা সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন অব পাকিস্তান (এসইসিপি) আইনটি সংশোধনের প্রস্তাব করেছে। এরইমধ্যে খসড়া আইনটি মতামতের জন্য এসইসিপি’র ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়েছে।

বীমা বাজার বিকাশের জন্য উৎসাহী নিয়ন্ত্রণমূলক পরিবেশ সরবরাহ করা ছাড়াও প্রযুক্তির ব্যবহার সহজতর করা, ব্যবসা-বাণিজ্য সহজ করা এবং এনটিটি-স্পেসিফিক ও সিস্টেমিক রিস্ক মোকাবেলায় ঝুঁকি-ভিত্তিক তদারকি (আরবিএস) এবং ঝুঁকি-ভিত্তিক মূলধন (আরবিসি) শাসন ব্যবস্থার দিকে ঝুঁকে পড়া এই পরিবর্তনের লক্ষ্য।

বীমা অধ্যাদেশ’র এই সংশোধন নিয়ন্ত্রন কাঠামোকে আরও জোরদার করবে এবং আন্তর্জাতিক বীমা তত্ত্বাবধায়ক সংস্থা (আইএআইএস) এর ইন্স্যুরেন্স কোর প্রিন্সিপালের (আইসিপি) সাথে এর বিন্যাস নিশ্চিত করবে। দেশটির স্থানীয় সংবাদমাধ্যম ডন এ খবর দিয়েছে।

খসড়া বিলে প্রস্তাবিত উল্লেখযোগ্য সংস্কারের মধ্যে রয়েছে, নিবেদিত ক্ষুদ্রবীমা কোম্পানিগুলোকে অন্তর্ভুক্ত; তাকাফুল এবং রি-তাকাফুল নিয়ন্ত্রণের বিধান; স্থানীয় সক্ষমতা বৃদ্ধির জন্য স্থানীয় ও বিদেশী পুনর্বীমা ব্যবসায় নিয়ন্ত্রণ; পুনর্বীমা ব্রোকারদের নিয়ন্ত্রণ; নতুন মধ্যস্থতাকারী প্রবর্তন সহজীকরণ; বীমা ভান্ডার এবং ইন্স্যুরেন্স সেলফ-নেটওয়ার্ক প্ল্যাটফর্ম; সূচক ভিত্তিক বীমা এবং বীমা প্রযুক্তি নিয়ন্ত্রণের বিধান।

নিয়ন্ত্রক কাঠামো শক্তিশালী করতে আইএআইএসের মূল নীতিমালার সাথে আইনকে বিন্যাস করতে এবং সিস্টেমিক ঝুঁকি মোকাবেলায় আরবিএস এবং আরবিসি শাসনব্যবস্থা প্রবর্তন এবং ঋণ পরিশোধে অসমর্থতায় বীমা কোম্পানির জন্য গ্যারান্টি ফান্ড গঠন ও পরিচালনার বিধানগুলো অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে প্রস্তাবিত সংশোধনীতে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

সম্পাদক ও প্রকাশক
মোস্তাফিজুর রহমান টুংকু সম্পাদকীয় কার্যালয়
৫৩ মডার্ন ম্যানসন, মতিঝিল সি/এ, লেভেল # ১১, স্যুট # ৬, ঢাকা-১০০০।
ফোন: ০২ ৯৫১৪৮৭২, ইমেইল: insurancenewsbd@gmail.com